এসএসসি ও এইচএসসিতে অটোপাস নয়, প্রয়োজনে অ্যাসাইনমেন্টের মাধ্যমে মূল্যায়ন

সর্বশেষ আপডেটঃ

ঊষার আলো ডেস্ক : চলতি বছর কয়েক দফা শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার চিন্তা থাকলেও করোনার হার না কমায় তা আর সম্ভব হয়নি। আর জটিলতায় চলতি বছরের এসএসসি ও এইচএসসি পরীক্ষা কবে শুরু হবে তাও এখনো অনিশ্চিত। কিন্তু সংক্ষিপ্ত পরিসরে হলেও প্রচলিত পরীক্ষা পদ্ধতি অনুযায়ীই এ দুটো পরীক্ষার আয়োজন করতে চায় শিক্ষা মন্ত্রণালয়। তবে সেটাও যদি সম্ভবপর না হয় তাহলে অন্তত অ্যাসাইনমেন্ট পর্যালোচনা করে তাদের পরবর্তী শ্রেনিতে প্রমোশনের পরিকল্পনা করছেন সংশ্লিষ্টরা।

সেই পরিকল্পনার কথা চিন্তায় রেখেই  সংক্ষিপ্ত সিলেবাসের আলোকে এসএসসি এবং এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের অ্যাসাইনমেন্ট দেওয়া হচ্ছে। বর্তমানে কঠোর লকডাডন পরিস্থিতিতে এ কার্যক্রমও স্থগিত রয়েছে। কঠোর লকডাউন শেষে তা পুনরায় শুরু করা হবে। কিন্তু এখনো বছরের কোন একসময়ে পরীক্ষা নেওয়ার চিন্তা করছে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ।

এই বিষয়ে মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদপ্তরের (মাউশি) মহাপরিচালক প্রফেসর ড. সৈয়দ মো. গোলাম ফারুক জনান, পরীক্ষার মাধ্যমেই আমরা শিক্ষার্থীদের পরবর্তী শ্রেণিতে প্রমোশন দিতে চাই। কিন্তু কোনো কারণে যদি পরীক্ষা আয়োজন করা সম্ভব না হয় তখন অ্যাসাইনমেন্টের মাধ্যমে তাদের মূল্যায়ন হবে।

তিনি আরও বলেন, এবার কোনো অবস্থাতেই আর অটোপাস দেয়া হবে না। আমরা যে অ্যাসাইনমেন্ট দিয়েছি সেগুলোকে সংরক্ষণ করতে বলেছি।

উল্লেখ্য করোনা মহামারির কারণে ২০২০ সালের এইচএসসি পরীক্ষায় অটোপাস দেওয়া হয়েছিল। এছাড়াও শর্তসাপেক্ষে ২০২০/২১ শিক্ষাবর্ষের জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থীদেরও অটোপাস প্রদান করা হয়েছে। এক্ষেত্রে শর্তটা হলো পরবর্তী কোন এক সময়ে তাদের এ পরীক্ষাটা দিতে হবে।

(ঊষার আলো-এফএসপি)