কুষ্টিয়ার চিনিকলের তিন জনের নামে দুদকের মামলা, সাময়িক বরখাস্ত

সর্বশেষ আপডেটঃ

ঊষার আলো ডেস্ক : কুষ্টিয়া চিনিকলের গুদাম থেকে ৫২.৭ টন চিনি গায়েবের ঘটনায় দুদকে মামলা হয়েছে। বৃহস্পতিবার (১২ আগস্ট) কমিশনের অনুমোদন পাওয়ার পর দুদক মামলাটি দায়ের করেন। এর আগে বিভাগীয় ব্যবস্থা হিসেবে ২জন নিরাপত্তা হাবিলদারকে অব্যাহতি এবং ৩ জনকে সাময়িক বরখাস্ত করে চিনিকল কর্তৃপক্ষ।

মামলার বাদী দুদকের কুষ্টিয়া সমন্বিত জেলা কার্যালয়ের উপ-সহকারী পরিচালক নীল কমল পাল। আসামি করা হয়েছে কুষ্টিয়া চিনিকলের উপ-ব্যবস্থাপনা পরিচালক আল-আমীন, গুদাম রক্ষক ফরিদুল হক ও শ্রমিক সর্দার বশির উদ্দিনকে।

জানা গেছে, কুষ্টিয়া চিনিকলের গুদাম থেকে ৫২ দশমিক ৭ টন চিনি উধাও এর ঘটনা ধরা পড়ে গত ৩ জুন। এর একদিন পরেই আসে শিল্প মন্ত্রণালয়ের ৫ সদস্যের তদন্ত-দল। তারা জড়িত ৩ জনের বিরুদ্ধে ফৌজদারি মামলা ও কয়েকজনের বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা নেয়াসহ ৫ দফা সুপারিশ করেন।

ওই কমিটির সুপারিশ মোতাবেক কুষ্টিয়া মডেল থানায় অভিযোগ করে চিনিকল কর্তৃপক্ষ। থানা তা দুদকে পাঠান। দুদক কুষ্টিয়া কার্যালয় মামলা আকারে নেয়ার জন্য কমিশনের অনুমতি চান। সেই অনুমতি আসার পর আজ বৃহস্পতিবার মামলাটি দায়ের হলো। প্রায় ৬শ কোটি টাকা লোকসানে থাকা এই চিনিকলের মাড়াই গত মৌসুম থেকে বন্ধ রেখেছে সরকার।

দুদক কুষ্টিয়ার উপ-পরিচালক মো. জাকারিয়া মামলার বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, কুষ্টিয়া জেলা ও দায়রা জজ আদালত থেকে এ বিষয়ে অর্ডার জারি হয়েছে।

(ঊষার আলো-এমএনএস)