কেশবপুরে মরা গাছের নিচ দিয়ে ঝুঁকি নিয়ে যাতায়াত

সর্বশেষ আপডেটঃ
কেশবপুরে মৃত গাছ, ঝুঁকিতে চলাচল করছে পথচারীরা - ঊষার আলো
পরেশ দেবনাথ, কেশবপুর (যশোর) : যশোরের কেশবপুরের বায়শা কালীবাড়ি রোডে মরা শিশুগাছের (রেইন্ট্রি গাছের) নিচ দিয়ে ঝুকি নিয়ে যাতায়াত করছে পথচারীরা। গাছটি রোগাক্রান্ত হয়ে মরে গেছে বলে ধারনা করা হচ্ছে। দীর্ঘদিন ধরে এ মরা গাছটির ডালপালা রাস্তার উপর ভেঙে পড়ে। কেশবপুরের দক্ষিন-পর্শ্চিমাঞ্চলের এই জনগুরুত্বপূর্ন রাস্তাটি দিয়ে প্রতিদিন হাজার হাজার মানুষ  ঝুকি নিয়ে এই মরা গাছের নিচ দিয়ে যাতায়াত করছে।
সরেজমিন ও স্থানীয় সুত্রে জানাগেছে, উপজেলার কেশবপুর বেতগ্রাম সড়কের বায়শা কালীবাড়ি নামক স্থানে দীর্ঘদিন ধরে একটি শিশুগাছ (রেইন্ট্রি গাছ) মরা অবস্থায় রয়েছে। গাছটি  রাস্তার পাশে ও বিদ্যুতের তারের উপর থাকায় যেকোন সময় ঘটতে পারে দূর্ঘটনা। মজিদপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হুমায়ুন কবির পলাশ বলেন, যেহেতু গাছটি মরে গেছে যে কোন সময় গাছের ডাল ভেঙে বিদ্যুতের তার ছিড়ে বা পড়ে একটা  দূর্ঘটনা ঘটতে পারে সেহেতু গাছটি অপসারন জরুরী বলে আমি মনে করছি।
বড় কোন দূর্ঘটনা ঘটার আগেই গাছটি দ্রত অপসারনের দাবী জানিয়েছেন এলাকার সচেতন মহল ও প্রতিনিয়ত চলাচালকারী পথচারীরা। উপজেলা বন সংরক্ষনকারী কর্মকর্তা গোলাম মোস্তফা বলেন, বিষয়টি আপনাদের মাধ্যমে জানলাম। সরেজমিনে পরিদর্শন করে যদি জনসাধারনের স্বার্থে গাছটি অপসারন করার প্রয়োজন পড়ে তার যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।