ডুমুরিয়ায় চাঁদাবাজি মামলায় দুই ইউপি মেম্বারসহ আটক ৩

সর্বশেষ আপডেটঃ

ঊষার আলো প্রতিবেদক : খুলনা জেলার ডুমুরিয়া উপজেলায় ৫লক্ষ টাকা চাঁদাবাজির মামলায় জড়িত দুই ইউপি মেম্বারসহ ৩ জনকে আটক করেছে পুলিশ। গতকাল (৯ আগস্ট) রাত ৮টায় এদেরকে ডুমুরিয়া থানা এলাকা থেকে ৫ লাখ টাকাসহ গ্রেফতার করা হয়।

আটককৃতরা হলেন, উপজেলার রাঘুনাথপুর ইউপি’র ৪নং ওয়ার্ডের মেম্বার আব্দুল হক এবং ৫নং ওয়ার্ডের মেম্বার মোঃ মনিরুজ্জামান (মনি) ও তার ভাই জি এম রাসেল (৩২ )।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায় , গত ৮ আগস্ট রাত ১১টায় ডুমুরিয়া উপজেলার রঘুনাথ পুর ইউনিয়নের আন্দুলিয়া গ্রামের দুই সন্তানের জননী রুবার (২২) শয়ন কক্ষে একই এলাকার নেজামুল হক সর্দার মুকুল(২৮) কে আটক করে স্থানীয়রা । এরপর ৯৯৯ নম্বরে ফোন দিলে রঘুনাথপুর পুলিশ তদন্ত কেন্দ্র থেকে এস আই মোঃ এনায়েত হোসেন সঙ্গীয় ফোর্সসহ ঘটনাস্থলে আসে। পরে রাতেই রঘুনাথপুর ইউনিয়নের ৪ নম্বর ওয়ার্ডের মেম্বার আব্দুল হক ও ৫ নম্বর ওয়ার্ডের মেম্বার মোঃ মনির হোসেন ও উভয় পক্ষের অভিভাবকদের উপস্থিতিতে ঘটনাটির মীমাংসা করেন।

পরবর্তীতে পুলিশ চলে গেলে মুকুলকে রাস্তা থেকে দুই মেম্বারসহ অন্যরা ধরে নিয়ে মারধর করে আটকে রেখে তার কাছে ৫ পাচ লক্ষ টাকা চাঁদা দাবি করে। ঐ রাতেই নগদ ২ দুই লক্ষ টাকা দিয়ে মুক্তি পায় মুকুল। পরবর্তীতে ৯ আগস্ট সকাল ১১টায় বাকী ৩ লাখ টাকা তাদেরকে দেন মুকুল। এঘটনায় ৯ আগস্ট রাত ১০টায় নেজামুল হক সর্দার মুকুল(২৮) বাদী হয়ে ডুমুরিয়া থানায় মেম্বারদ্বয় সহ ৬ জনের বিরুদ্ধে ৫ লক্ষ টাকার চাঁদা বাজীর মামলা দায়ের করেন যার নম্বর -০৮। বর্তমানে আটককৃতরা থানা হাজতে রয়েছে। আজ  তাদেরকে আদালতে প্রেরন করা হবে বলে পুলিশ জানিয়েছেন।

(ঊষার আলো-আরএম)