তালায় যৌতুকের দাবিতে স্ত্রীকে পিটিয়ে শিশু সন্তান কেড়ে নিলো স্বামী

সর্বশেষ আপডেটঃ
Satkhira_Ualo.jpeg

তালা প্রতিনিধি : যৌতুকের দাবিতে তালার খানপুর গ্রামে ১সন্তানের জননীকে পিটিয়ে গুরুতর আহত করা হয়েছে। পাষন্ড স্বামী হাবিবুর রহমান ওরফে ইব্রাহীম তার স্ত্রী শারমীন আক্তার পলীকে অমানুষিকভাবে পিটিয়ে রাস্তার ফেলে রেখে কোলের শিশু সন্তানকে কেড়ে নেয় বলে অভিযোগে বলা হয়েছে। ঘটনায় তালা থানায় অভিযোগ দায়ের হয়েছে।

উপজেলার খানপুর গ্রামের ভুক্তভোগী পিতা হাবিবুর রহমান জানান, প্রায় ৫ বছর আগে একই গ্রামের আমজাদ সরদারের ছেলে হাবিবুর রহমান ওরফে ইব্রাহীম এর সাথে তার মেয়ে শারমীন আক্তার পলীর বিয়ে হয়। বিয়ের সময় দরিদ্র পিতা হাবিবুর রহমান তার মেয়ের সুখের জন্য স্বর্নালংকার, আসবাবপত্র ও প্রায় ২ লক্ষ টাকার বিভিন্ন মালামাল দেন। বর্তমানে পলী ও ইব্রাহীম দম্পত্তির ঘরে ওয়ালিদ হোসেন (২) নামের এক পুত্র সন্তান রয়েছে।

নির্যাতনের শিকার গৃহবধুর পিতা আরও বলেন, বিয়ের কিছু দিন যাবার পরই জামাই হাবিবুর রহমান ওরফে ইব্রাহীম অন্য নারনীর সাথে পরকীয়া প্রেমে জড়িয়ে পড়ে। এ ঘটনায় বাঁধা দিলে ইব্রাহীম ক্ষিপ্ত হয়ে স্ত্রী পলীকে মারপিট করা সহ একপর্যায়ে ১ লক্ষ টাকা যৌতুক দাবী করে। এই টাকা দিতে না পারায় সর্বশেষ গত রোববার বিকালে ইব্রাহীম তার স্ত্রীকে অমানুষিক মারপিট করে এবং কোলের ২বছরের শিশুকে কেড়ে নেয়। এঘটনায় গরুতর আহত পলীকে ওইদিন তালা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এ বিষয়ে অভিযুক্ত ইব্রাহীম এর বিরুদ্ধে তালা থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।

(ঊষার আলো-এমএনএস)