পাইকগাছায় পৃথক অভিযানে ৯ জুয়াড়ী আটক; জেল ও জরিমানা

সর্বশেষ আপডেটঃ

পাইকগাছা প্রতিনিধি : পাইকগাছার চাঁদখালী ও হরিঢালী ইউনিয়ন থেকে পৃথক অভিয়যান চালিয়ে জুয়া খেলা অবস্থায় ৯ জুয়াড়ীকে জুয়া খেলার সরঞ্জাম ও নগদ অর্থ আটক করা হয়েছ। চাঁদখালী ইউনিয়নের দেবদুয়ার মালোপাড়ার মন্দির থেকে শনিবার (১৪ আগস্ট) দুপুরে ৫ জুয়াড়ীকে জুয়ার সরঞ্জাম ও নগদ অর্থসহ আটক করা হয়। উপজেলা নির্বাহী অফিসার এবিএম খালিদ হোসেন সিদ্দিকী এর নেতৃত্বে উপজেলা আনসার ও ভিডিপি প্রশিক্ষক মোঃ আলতাফ হোসেন তার সঙ্গীয় ফোর্সসহ এ অভিযান পরিচালনা করেন। আটককৃতরা হলেন পাইকগাছা উপজেলার দেবদুয়ারের চিত্তরঞ্জন সরকারের ছেলে পবিত্র সরকার (৩৫), দেবেন্দ্রনাথ সরকারের ছেলে প্রশান্ত সরকার (৪২), মনোহর মল্লিকের ছেলে ধরম মল্লিক (৩২), বিল্লাল গাজীর ছেলে ইয়াসিন আরাফাত (১৮) ও অমূল্য মল্লিকের ছেলে সন্তোষ মল্লিক (৫৫)।

৫ জুয়াড়ীকে জুয়ার সরঞ্জাম ও নগদ অর্থসহ হাতেনাতে আটক করায় উপজেলা নির্বাহী ম্যজিষ্ট্রেট এবিএম খালিদ হোসেন সিদ্দিকী ভ্রাম্যমান আদালতের জুয়া আইনে পবিত্র সরকার ও প্রশান্ত সরকারকে এক মাস করে কারাদণ্ড এবং ধরম মল্লিক, ইয়াসিন আরাফাত ও সন্তোষ মল্লিককে ১০০ (একশত) টাকা করে জরিমানা করেন।

অপরদিকে শুক্রবার (১৩ আগস্ট) রাত ১১টার দিকে পুলিশ অভিযান চালিয়ে হরিঢালী ইউনিয়নের গোলাবাড়ী মোড়ের ইব্রাহিম সরদারের চায়ের দোকান থেকে ৪ জুয়াড়ীকে আটক করে। আটককৃতরা হলো নোয়াকাটি গ্রামের ইউনুছ সরদারের ছেলে রুহুল আমিন সরদার (২১), ইব্রাহিম সরদারের ছেলে আল আমিন সরদার (২৪), আঃ সালাম গাজীর ছেলে মিঠু গাজী(২৬) ও রেজেকপুর গ্রামের আঃ রশিদের ছেলে হাবিবুর রহমান লিটন(৩২)। তাদের নামে জুয়া আইনে থানায় মামলা হয়েছে। আইনি প্রক্রিয়ায় তাদেরকে আদালতে পাঠানো হয়েছে বলে থানা সূত্রে জানাগেছে।

(ঊষার আলো-এমএনএস)