বনগাঁও সীমান্তে বিজিবির সাথে সংঘর্ষে চোরাকারবারির মৃত্যু

সর্বশেষ আপডেটঃ

ঊষার আলো রিপোর্ট : সুনামগঞ্জ সদর উপজেলায় বনগাঁও সীমান্তে বিজিবি-চোরাকারবারি সংঘর্ষে বিজিবি সদস্য আহত হওয়ার ঘটনায় মামলা হয়েছে। ৬ মার্চ শনিবার রাতে সদর মডেল থানায় ৯ জনের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাতনামা ৩০ জনকে আসামি করে মামলাটি করা হয়েছে।
গত ৬ মার্চ দুপুর সোয়া ১২টায় সুনামগঞ্জ সদর উপজেলায় বনগাঁও সীমান্ত এলাকার ১২১৫নং আন্তর্জাতিক পিলারের পূর্বদিকে সাংবাদিক টিলা এলাকায় এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে।
স্থানীয় ও বিজিবি সূত্রে জানা গেছে, শনিবার দুপুরে বনগাঁও সীমান্ত দিয়ে ভারত থেকে অবৈধভাবে গরু আনছিল চোরাকারবারিরা। বিষয়টি টের পেয়ে বিজিবির বনগাঁও ক্যাম্পের সদস্যরা অন্তত ২৫টি গরু আটক করেছে। এ নিয়ে চোরাকারকারিদের সঙ্গে বিজিবির সংঘর্ষ সৃষ্টি হয়। এ সময় আশপাশের গ্রামের লোকজন ও চোরাকারবারিদের হামলায় বিজিবির ল্যান্স নায়েক লারমা আহত হয়েছেন। তখন বিজিবি ল্যান্স নায়ের আত্মরক্ষার্থে ২ রাউন্ড গুলি করেছে। এতে চোরাকারবারি কামাল হোসেন গুলিবিদ্ধ হয়।
ওইদিন দুপুরে তাকে সুনামগঞ্জ সদর হাসপাতালে আনা হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক সিলেটের এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজে হাসপাতালে স্থানান্তর করে। পরে সিলেটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান কামাল।
সুনামগঞ্জ সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মুহাম্মদ সহিদুর রহমান জানান, এ ঘটনায় বিজিবি ক্যাম্প কমান্ডার মোজাম্মেল হোসেন বাদী হয়ে একটি মামলা করেছে।

 

(ঊষার আলো-এম.এইচ)