UsharAlo logo
শনিবার, ১৩ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ২৯শে আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ভিসা পেতে হলে নিতে হবে চীনের তৈরি করা টিকা

usharalodesk
মার্চ ১৬, ২০২১ ৪:০৭ অপরাহ্ণ
Link Copied!

ঊষার আলো ডেস্ক : ভারত, যুক্তরাষ্ট্র, পাকিস্তানসহ বেশ কয়েকটি দেশের নাগরিকদের দেশে ঢুকতে দিতে সীমান্তে বিধিনিষেধ বেশ শিথিল করছে চীন। কিন্তু শর্ত হলো, তাঁদেরকে অবশ্যই চীনের তৈরি করোনার টিকা নিতে হবে।

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ রোধে গত বছরের মার্চ হতে চীন বিদেশি নাগরিকদের প্রবেশ বন্ধ করে। কিন্তু দেশটিতে এখন করোনার সংক্রমণ অনেকটাই নিয়ন্ত্রণে। চীনে কর্মরত অনেক বিদেশি নাগরিককেই দেশটিতে ফেরার সুযোগ দেওয়া হবে।

অনেক দেশে চীনের দূতাবাস নোটিশ জারি করে বলেছে, যাঁরা চীনের তৈরি টিকা নিয়েছেন, তাঁদের ভিসার আবেদন নেওয়া শুরু হবে। যুক্তরাষ্ট্রে নিযুক্ত চীনের দূতাবাসও একটি বিবৃতিতে স্থানীয় সময় গতকাল সোমবার (১৫ মার্চ) এই কথা জানায়। এই সপ্তাহ হতেই এ প্রক্রিয়া শুরু করা হবে। চীনে যাঁরা আবারও কাজ শুরু করতে চান বা বাণিজ্যিক ভ্রমণ করতে চান অথবা নিজের পরিবারের সঙ্গে দেখা করার মতো মানবিক প্রয়োজনে যেতে চান, তাঁদের ভিসা দেওয়া হবে। তবে শর্ত তাঁদের চীনে তৈরি টিকা নিতে হবে।

বেইজিং তাদের নিজেদের প্রস্তুত করা টিকার মাধ্যমে টিকাদান কর্মসূচি চালিয়ে যাচ্ছে। কিন্তু চীন এখনো বিদেশে তৈরি কোনো প্রকার টিকার অনুমোদন দেয়নি। দেশটি বিদেশেও তাদের প্রস্তুতকৃত টিকা পাঠিয়েছে।

চীনের দূতাবাস বিবৃতিতে জানিয়েছে, যাঁরা টিকার দু’টি ডোজ নিয়েছেন বা কমপক্ষে ১৪ দিন আগে একটি ডোজ নিয়েছেন, শুধু তাঁরা ভিসার জন্য আবেদন করতে পারবেন। পাকিস্তান, ভারত, ইতালি, ফিলিপাইন, শ্রীলঙ্কাসহ বিভিন্ন দেশে থাকা চীনের দূতাবাসে এই বিবৃতি পাঠানো হয়েছে।

বিদেশ হতে চীনে গেলে এখনো ৩ সপ্তাহ কোয়ারেন্টিনে থাকতে হয়। ইন্দোনেশিয়া, তুরস্ক, কম্বোডিয়াসহ বিভিন্ন দেশে চীন টিকা সরবরাহ করেছে। ফিলিপাইনে দু’সপ্তাহ আগে চীন হতে ৬ লাখ টিকার ডোজ এসে পৌঁছেছে।

চীনের সরকারি গণমাধ্যম জানিয়েছে, চীনের টিকা প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠানগুলো ৪০ কোটি ডোজ টিকা রপ্তানি করবে।

(ঊষার আলো-এফএসপি)