মনিরামপুরে স্কুল ছাত্রকে কুপিয়ে হত্যার চেষ্টা

সর্বশেষ আপডেটঃ

মণিরামপুর প্রতিনিধি : যশোরের মণিরামপুরে আল রুহানি (১৭) নামে এক স্কুল ছাত্রকে কুপিয়ে হত্যা চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে। শুক্রবার (১৩ আগষ্ট) রাত আটটায় উপজেলার এড়েন্দা গ্রামে এই ঘটনাটি ঘটে।

আহত যুবক ওই গ্রামের মালেশিয়ান প্রবাসী আব্দুল মতিনের মোল্ল্যার ছেলে। সে পলাশী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির ছাত্র। দুর্বৃত্তরা তার পিঠ, ঘাড় ও মাথায় কুপিয়ে রক্তাক্ত জখম করেছে। আহত রুহানি যশোর সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে।

আহত ছাত্রের ফুফু মুক্তা খাতুন বলেন, শুক্রবার সন্ধ্যার পরে কে বা কারা রুহানকে এড়েন্দা শ্মশানঘাটের বাগানে ডেকে নিয়ে যায়। তারপর তাকে ধারালো কিছু দিয়ে আঘাত করে। এখন রুহান সুস্থ আছে।

স্থানীয় আজিজুল বলেন, শুক্রবার সন্ধ্যার পরে রুহান রক্ত নিয়ে চিৎকার করে আমাদের বাড়ি ঠেলে ওঠে। ও তখন বলছিলো, কাকি আমারে বাঁচাও, আমাকে মেরে ফেললো।
আজিজুল আরও বলেন, এড়েন্দা মোড় থেকে স্প্রিড কিনে রুহানকে তার বন্ধুরা ডেকে নেয়। পরে কালো কাপড় দিয়ে চোখ বেধে রুহানকে কুপিয়ে জখম করে। রুহানের পিঠ, ঘাড় এবং মাথায় কোপের দাগ আছে।

এদিকে শনিবার সকালে সরেজমিন শ্মশানঘাটে ঘটনাস্থলে দেখা গেছে, রুহানকে যেখানে ডেকে নেওয়া হয়েছে জায়গাটি নির্জন। দিনের বেলায় সেখানে যেতে ভয় পান মানুষ। ঘটনাস্থলে ছড়িয়ে থাকা চারটি স্প্রিডের বোতল, সিগারেটের প্যাকেট, বাদামের খোসা ও ব্লেড পাওয়া গেছে।
খেদাপাড়া ক্যাম্পের ইনচার্জ উপ-পরিদর্শক গোলাম রসুল বলেন, খবর পেয়ে আমরা ঘটনাস্থলে গিয়েছি। ভিকটিমের সাথে কথা বলতে পারিনি। সে হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছে। সুস্থ হয়ে ফিরলে বিস্তারিত জানতে পারব।

(ঊষার আলো-আরএম)