লাকসামের দৌলতগঞ্জ বাজারে আগুন

সর্বশেষ আপডেটঃ

ঊষার আলো রিপোর্ট : কুমিল্লার লাকসাম পৌরশহরের দৌলতগঞ্জ বাজারে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। এতে প্রায় ১৫-২০টি দোকান পুড়ে ছাঁই হয়ে গেছে। এতে কয়েক কোটি টাকার ক্ষতি হয়েছে।
গতকাল ৮ মে শনিবার দিবাগত রাত ১টা ৫৫ মিনিটের দিকে বাজারের নোয়াখালী রেলগেটসংলগ্ন একটি মার্কেট এবং এর আশপাশের কয়েকটি দোকানে এ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে।
আগুনে বনফুল কনফেকশনারি, এস.আর ইলেকট্রনিক ও এর আশপাশে থাকা কয়েকটি ইলেকট্রনিক দোকান ও ওষুধের দোকান পুড়ে ছাঁই হয়ে গেছে। আগুনের সূত্রপাত সম্পর্কে এখনও জানা যায়নি। তবে ধারণা করা হচ্ছে বৈদ্যুতিক শট সার্কিট থেকে এ আগুনের সূত্রপাত হয়েছে।
প্রত্যক্ষদর্শী ও স্থানীয় ব্যবসায়ীরা বলেছেন, খুব দ্রুত আগুনের তীব্রতা বেড়ে যায়। খবর পেয়ে লাকসাম ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের কর্মীরা ঘটনাস্থলে আসলেও প্রয়োজনীয় পানির অভাবে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনতে পড়তে হয় বিপাকে।
ঘটনাস্থল থেকে মাত্র ১৫০ ফুট দূরে জগন্নাথ দীঘিতে বেশ কিছুদিন ধরে লাকসাম পৌরসভার সৌন্দর্যবর্ধনের কাজ চলছে। ফলে দীঘিটি পানিশূন্য করে শুকিয়ে ফেলা হয়েছে। পাশের এই বিশাল দীঘিটি ছাড়া বাজার এলাকায় আর কোনো পুকুর বা জলাশয় নেই। তবে ডাকাতিয়া নদীও বেশ অনেকটা দূরে।
পরে লাকসামের ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা নিজস্ব পানি দিয়ে রাত ৩টার দিকে আগুন নিয়ন্ত্রনে আনতে সক্ষম হয়। আগুনে কয়েক কোটি টাকার ক্ষতি হয়েছে বলে দাবি করেছে ক্ষতিগ্রস্ত ব্যবসায়ীরা।
(ঊষার আলো- এম. এইচ)