কর্মবিরতিতে স্থলবন্দর বেনাপোলে অচলাবস্থা

১৫ দফা দাবিতে সারাদেশে ৩ দিনের ট্রাক ধর্মঘট

সর্বশেষ আপডেটঃ

ঊষার আলো ডেস্ক : ১৫ দফা দাবি আদায়ের লক্ষ্যে মঙ্গলবার (২১ সেপ্টেম্বর) সকাল ৬টা থেকে বৃহস্পতিবার সকাল ৬টা পর্যন্ত দেশব্যাপী ধর্মঘটের ডাক দিয়েছে ট্রাক ও কাভার্ড ভ্যান মালিক-শ্রমিক ঐক্য পরিষদ । এটি মালিক এবং শ্রমিকদের যৌথ কর্মসূচি বলে জানা গেছে।

সরকার যদি দাবি মেনে না নেয়, পরবর্তীতে আরও কঠিন কর্মসূচি দেওয়া হবে। ১৫ দফা দাবির মধ্যে রয়েছে, ট্রাক ও কাভার্ড ভ্যানের অগ্রিম আয়কর নেয়া যাবে না ও এ পর্যন্ত নেওয়া অগ্রিম আয়কর ফেরত দিতে হবে। ১০ বছর ধরে ট্রাক এবং কাভার্ড ভ্যানচালকদের লাইসেন্স দেওয়া বন্ধ রয়েছে, অবিলম্বে লাইসেন্স দেওয়া পুনরায় চালু করতে হবে। শ্রমিক ইউনিয়নের নামে কল্যাণ ফান্ডের অর্থ তোলার অনুমতি ও করোনাকালীন ক্ষতিগ্রস্ত মালিক এবং শ্রমিকদের প্রণোদনা প্যাকেজের আওতায় আনতে হবে।

এদিকে, ১৫ দফা দাবি আদায়ের লক্ষ্যে বাংলাদেশ ট্রাক কাভার্ডভ্যান, প্রাইমমুভার পণ্য পরিবহন মালিক অ্যাসোসিয়েশন ও বাংলাদেশ ট্রাকচালক শ্রমিক ফেডারেশনের ডাক দেওয়া ৭২ ঘণ্টা কর্মবিরতিতে স্থলবন্দর বেনাপোলে চরম অচলাবস্থার সৃষ্টি হয়েছে। এতে আমদানি ও রপ্তানি বাণিজ্যে ব্যাহত হচ্ছে। প্রায় দুই হাজার পণ্যবাহী ট্রাক বন্দর এলাকায় আটকা পড়েছে। ৩ কিলোমিটার এলাকাজুড়ে ভয়াবহ পণ্য এবং যানজটের সৃষ্টি হয়েছে। এতে ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছেন ব্যবসায়ীরা। এতে পচনশীল পণ্য পচে নষ্ট হচ্ছে।

মঙ্গলবার সকাল থেকে শুরু হওয়া কর্মবিরতিতে দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে বেনাপোল বন্দরে কোন ট্রাক আসছে নািএমনকি বন্দর থেকেও পণ্য নিয়ে যাচ্ছে না কোনো ট্রাক ও কভার্ডভ্যান। তাই পণ্যবাহী ট্রাকের জট ভয়াবহ রুপ ধারণ করেছে। বেনাপোল শার্শা নাভারন এলাকায় শ্রমিকদেরকে কোনো পিকেটিং করতে দেখা যায়নি।
বেনাপোল সিএন্ডএফ এজেন্ট অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি মফিজুর রহমান সজন জানান, বন্দরকে সচল রাখতে সরকারসহ বিভিন্ন সংগঠনের সাথে যোগাযোগ রক্ষা করা হচ্ছে।

(ঊষার আলো-আরএম)