কৃষি আইন বাতিলের প্রস্তাব ভারতের মন্ত্রিসভায় গৃহীত

সর্বশেষ আপডেটঃ

ঊষার আলো ডেস্ক : অবশেষে বিতর্কিত তিন কৃষি আইন বাতিলের প্রস্তাব অনুমোদন দিয়েছে ভারতের কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভা।

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর ঘোষণার পর আজ বুধবার (২৪ নভেম্বর) কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভার বৈঠকে কৃষি আইন বাতিলের প্রস্তাব গ্রহীত হয়।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম হিন্দুস্তান টাইমসের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, ২৯ নভেম্বর থেকে ভারতের সংসদে শীতাকালীন অধিবেশন শুরু হতে যাচ্ছে। সেই দিনই কৃষি আইন বাতিল করতে বিল পেশ করবে কেন্দ্র। তার আগে বুধবার কৃষি আইন বাতিলের প্রস্তাব মঞ্জুর করা হলো।

সম্প্রতি জাতির উদ্দেশে দেওয়া ভাষণে দেশবাসীর কাছে ক্ষমা চেয়ে নরেন্দ্র মোদী জানান, তিনটি কৃষি আইনই প্রত্যাহার করে নেবে তার সরকার। আর সংসদের আসন্ন শীতকালীন অধিবেশনেই আইন প্রত্যাহারের সাংবিধানিক প্রক্রিয়া সম্পন্ন করা হবে।

দীর্ঘদিনের রাজনৈতিক বিতর্ক, আন্দোলনে ইতি টানতে গুরুনানক জয়ন্তীর দিন নরেন্দ্র মোদী ঘোষণা করেন যে, তিন কৃষি আইন প্রত্যাহার করবে কেন্দ্র সরকার। সংবিধানের ২৪৫ ধারায় সংসদের আইন বাতিলের ক্ষমতা আছে সংসদের। ভারতে যেকোনো আইন বাতিল করতে হলে সেই সংক্রান্ত প্রস্তাবনা পেশ করতে হয় সংসদে।

এই ক্ষেত্রে কৃষি আইন বাতিলের বিলটি সংসদে পেশ করার কথা সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রীর। বিল পাসের মতোই আইন প্রত্যাহারের ক্ষেত্রেও সংসদের উভয়কক্ষে এ নিয়ে আলোচনা হবে। এরপর ভোটাভুটি হবে আইন প্রত্যাহার নিয়ে। পরে আইন প্রত্যাহারের প্রস্তাব পাস হলে সে বিল পাঠানো হবে রাষ্ট্রপতির কাছে। আর রাষ্ট্রপতি স্বাক্ষর করলে আইনগুলো বাতিল হবে।

(ঊষার আলো-এফএসপি)