খালেদার মুক্তি ও চিকিৎসার দাবিতে বিএনপির ৮ দিনের কর্মসূচি ঘোষণা

সর্বশেষ আপডেটঃ

ঊষার আলো রিপোর্ট : হাসপাতালে চিকিৎসাধীন বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তি ও বিদেশে উন্নত চিকিৎসার দাবিতে বৃহস্পতিবার (২৫ নভেম্বর) থেকে ৮ দিনের আন্দোলন কর্মসূচি ঘোষণা করেছে তার দল বিএনপি।

বুধবার (২৪ নভেম্বর) নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে যৌথসভা শেষে দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর সংবাদ সম্মেলনে এ কর্মসূচি ঘোষণা করেন দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

সংবাদ সম্মেলনে মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর জানান, খালেদা জিয়ার মুক্তি ও বিদেশে সুচিকিৎসা নিশ্চিতের দাবিতে ২৫ নভেম্বর রাজধানীসহ সারাদেশে বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করবে জাতীয়তাবাদী যুবদল। রাজধানীতে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে বিক্ষোভ হবে।

তিনি আরও বলেন, বিএনপির স্থায়ী কমিটির বৈঠকের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী এবং সম্পাদকমণ্ডলীয় নেতাদের সঙ্গে যৌথ সভার সিদ্ধান্ত অনুযায়ী খালেদা জিয়ার মুক্তি ও বিদেশে চিকিৎসার দাবিতে আমাদের এসব কর্মসূচি পালন করা হবে।

শুক্রবার (২৬ নভেম্বর) বাদ জুমা সারাদেশের মসজিদে মসজিদে খালেদা জিয়ার সুস্থতা কামনায় দোয়া করা হবে। এছাড়া অন্যান্য ধর্মাবলম্বীরা নিজ-নিজ উপাসনালয়ে প্রার্থনা করবে।

শনিবার (২৮ নভেম্বর) রাজধানীসহ সারাদেশে বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করবে জাতীয়তাবাদী স্বেচ্ছাসেবক দল। ঢাকায় জাতীয় প্রেসক্লাবে বিক্ষোভ পালিত হবে।

দলীয় কর্মসূচি নির্ধারণে বুধবার (২৪ নভেম্বর) দুপুর ১টায় দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে বিএনপির যৌথ সভা হয়।

মঙ্গলবার (৩০ নভেম্বর) বিভাগীয় সমাবেশ করবে বিএনপি।

বুধবার (১ ডিসেম্বর) ঢাকাসহ সারাদেশে সমাবেশ করবে ছাত্রদল। ঢাকার সমাবেশ হবে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে।

শুক্রবার (৩ ডিসেম্বর) জাতীয়তাবাদী মুক্তিযোদ্ধা দলের পক্ষ থেকে সারাদেশে মানববন্ধন করা হবে। ঢাকার কর্মসূচি হবে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে।

শনিবার (৪ ডিসেম্বর) জাতীয়তাবাদী মহিলা দল ঢাকাসহ সারাদেশে মৌন মিছিল করবে। ঢাকায় জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে কর্মসূচি পালন করা হবে।

সভায় সভাপতিত্ব করেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। সভায় বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব, সাংগঠনিক সম্পাদক ও সহসাংগঠনিক সম্পাদকরা উপস্থিত ছিলেন।

এছাড়া অঙ্গসহযোগী সংগঠনের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকরাও উপস্থিত ছিলেন। সভায় এই উপরোল্লিখিত কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়।

(ঊষার আলো-এমএনএস)