উন্নয়ন অব্যাহত রাখতে মনোনয়ন প্রত্যাশা করেছেন ইউপি চেয়ারম্যান রিপন

সর্বশেষ আপডেটঃ

পাইকগাছা (খুলনা) প্রতিনিধি : এলাকার উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে এবারের নির্বাচনেও আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন প্রত্যাশা করেছেন পাইকগাছার ৩নং দেলুটি ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক রিপন কুমার মন্ডল। রিপন কুমার মন্ডল দলীয় মনোনয়ন পেতে বর্তমানে তিনি ঢাকায় অবস্থান করছেন। এলাকার ক্লিনইমেজের এ জনপ্রতিনিধি ২০১৬ সালে প্রথমবারের মত দেলুটি ইউনিয়ন পরিষদ থেকে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন। বিগত ৫ বছরে তিনি দ্বীপবেষ্টিত ইউনিয়নের অভূতপূর্ব উন্নয়ন করার পাশাপাশি ঘূর্ণিঝড়, ফনি, বুলবুল, আম্ফান ও মহামারী করোনা মোকাবেলায় গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখেন। রিপন কুমার মন্ডল প্রাকৃতিক দুর্যোগে ক্ষতিগ্রস্থ বাঁধ মেরামতের সময় এলাকাবাসী ও শ্রমিকদের সাথে নিজেই কাজ করে ক্ষতিগ্রস্থ বাঁধ মেরামত করেন। পাশাপাশি জীবনের ঝুঁকি নিয়ে মহামারী করোনার সময় এলাকার দুস্থ ও অসহায় মানুষের পাশে থেকে প্রতিটি বাড়ীতে প্রধানমন্ত্রীর সহায়তা পৌছে দিয়েছেন। রাজনৈতিকভাবে তিনি বর্তমানে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। এর আগে তিনি উপজেলা আওয়ামী লীগের আহবায়ক কমিটির সদস্য, যুব ও ক্রীড়া বিষয়ক সম্পাদক, উপজেলা যুবলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক, পাইকগাছা কলেজ ছাত্রলীগের সদস্য ছিলেন এবং গুরুত্বপূর্ণ সাংগঠনিক দায়িত্ব পালন করেন। সামাজিকভাবেও রিপন কুমার উপজেলা পূজা উদযাপন পরিষদ ও উপজেলা হিন্দু বৌদ্ধ খ্রীস্টান ঐক্য পরিষদের সদস্য সহ বিভিন্ন সামাজিক সংগঠনের গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্বে রয়েছেন। পারিবারিকভাবে রিপন কুমার মন্ডলের পরিবারের সবাই আওয়ামী লীগ রাজনীতির সাথে সংশ্লিষ্ট রয়েছেন। তার পিতা বীরেন্দ্রনাথ মন্ডল উপজেলা আওয়ামী লীগের একজন অন্যতম সদস্য ছিলেন। ১৯৪৯ সাল থেকে ১৯৮৬ সাল পর্যন্ত টানা ৩০ বছর দেলুটি ইউনিয়নের প্রেসিডেন্ট ও চেয়ারম্যান ছিলেন। চেয়ারম্যান থাকাকালীন ১৯৮৬ সালের ২৪ অক্টোবর সন্ত্রাসীরা প্রকাশ্যে দিবালোকে তার পিতাকে নির্মমভাবে হত্যা করে। এবারের নির্বাচনেও দলীয় মনোনয়ন পেয়ে নৌকা প্রতীক নিয়ে পুনরায় চেয়ারম্যান নির্বাচিত হওয়ায় ইউনিয়নের উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখার প্রত্যয় ব্যক্ত করে এলাকাবাসীর কাছে দোয়া ও আশির্বাদ চেয়েছেন রিপন কুমার মন্ডল।