ওয়ার্কার্স পার্টির জেলা কমিটির সভা

কৃষকদের প্রণোদনা ও কৃষিঋণে সরকারি ঘোষণা বাস্তবায়িত হচ্ছে না

সর্বশেষ আপডেটঃ

ঊষার আলো ডেস্ক : বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির খুলনা জেলা কমিটির এক সভা শুক্রবার (০১ অক্টোবর) সকাল ১০টায় ফুলতলায় জেলা কমিটির সভাপতি কমরেড এ্যাড. মিনা মিজানুর রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত হয়।

জেলা সাধারণ সম্পাদক কমরেড আনছার আলী মোল্লার সঞ্চালনায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেনÑজেলা সম্পাদকম-লীর সদস্য কমরেড দেলোয়ার উদ্দিন দিলু, কমরেড গৌরাঙ্গ প্রসাদ রায়, নির্বাহী সদস্য কমরেড সন্দীপন রায়, কমরেড হামিদ মোড়ল, কমরেড গৌরি মণ্ডল, কমরেড শেখ সেলিম আক্তার স্বপন।

সভার শুরুতে পার্টির প্রয়াত কন্ট্রোল কমিশনের চেয়ারম্যান ও সাবেক খুলনা-৪ আসনের সংসদ সদস্য কমরেড সেখ সাহিদুর রহমান, ডুমুরিয়া পার্টি নেতা কমরেড প্রভাষক আবুল বাশার মোল্লা এবং ফুলতলার বরণপাড়ার শাখা নেতা কমরেড আব্দুর রহমান-এর প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে ১ মিনিট দাঁড়িয়ে নিরবতা পালন করা হয়।

সভায় বক্তারা বলেন, দেশে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বিনষ্টকারী বিশেষ মৌলবাদীগোষ্ঠী সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বিনষ্ট করার লক্ষ্যে নানাবিধ উস্কানিমূলক কর্মকা- চালিয়ে যাচ্ছে, যা দেশের মৌলিক গণতান্ত্রিক চেতনার ও স্বাধীনতার পরিপন্থী। এ বিষয়ে সরকারের কঠোর হস্তক্ষেপ কামনা করা হয়। করোনাকালীন ক্ষতিগ্রস্ত কৃষকদের প্রণোদনা এবং বিনা জামানতে কৃষিঋণ দেয়ার সরকারি ঘোষণা বাস্তবায়িত হচ্ছে না। নানা অজুহাতে কৃষকদের বঞ্চিত করা হচ্ছে। অপরদিকে শিক্ষার পরিবেশ স্বাভাবিক অবস্থায় ফিরিয়ে আনার জন্য বর্তমানে যে উদ্যোগ নেয়া হয়েছে সে সময় করোনাকালীন দীর্ঘ দেড় বছরের সমস্ত বকেয়া বেতনাদি পরিশোধের জন্য চাপ সৃষ্টি করা হচ্ছে, কোথায় কোথায় হঠকারী পদক্ষেপের ফলে শিক্ষার স্বাভাবিক পরিবেশ ব্যাহত হওয়ার উপক্রম হচ্ছে। তাই সরকারের উচিৎ এ বিষয়ে দ্রুত হস্তক্ষেপ গ্রহণ করে এ পরিস্থিতি নিরসন করা। এছাড়া ফুলতলা উপজেলাসহ দেশের প্রায় সকল ভূমি অফিসের দুর্নীতির কারণে সাধারণ জনগণ দুর্বিসহ সমস্যার সম্মুখীন হচ্ছেন। অবিলম্বে এ সকল সমস্যারও সমাধানে সরকারকে সচেষ্ট হওয়ার আহ্বান জানানো হয়। সভায় জেলা পার্টির বিভিন্ন সাংগঠনিক কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়।