খুলনা মহানগর ছাত্রদলের দুই দিনব্যাপি বর্ধিত সভা সম্পন্ন

সর্বশেষ আপডেটঃ

ঊষার আলো ডেস্ক : প্রতিকূল সময়ে দাঁড়িয়েও যারা জাতীয়তাবাদী ছাত্রদলের পতাকা তুলে এসেছেন। সকল বিভেদ ও অন্তর্কোন্দল ভুলে তাদের প্রতি সহযোগিতা হাত বাড়িয়ে দিয়ে সংগঠনকে শক্তিশালী ও ঐক্যবদ্ধ করার আহবান জানিয়েছেন দলটির সাবেক সভাপতি ও সাবেক ভিপি তরিকুল ইসলাম জহীর।

খুলনা মহানগর ছাত্রদলের বর্ধিত সভায় আমন্ত্রিত অতিথি হিসেবে দেয়া বক্তব্যে এ আহবান জানান তিনি। গতকাল রবিবার (২৯ আগষ্ট) বেলা ১১টায় নগরীর দলীয় কার্যালয়ে ছাত্রদলের বর্ধিত সভার মুলতবি অধিবেশন অনুষ্ঠিত হয়।

এর আগে শনিবার একই স্থানে শুরু হওয়া বর্ধিত সভায় বিএনপির কেন্দ্রীয় তথ্য সম্পাদক আজিজুল বারী হেলাল সহ ছাত্রদলের কেন্দ্রীয় নির্বাহী সংসদের নেতৃবৃন্দ ও খুলনা ছাত্রদলের সাবেক নেতৃবৃন্দ বক্তব্য রাখেন। এরপর সভা মুলতবি ঘোষণা করা হয়।

সাবেক ছাত্র ও যুবনেতা তরিকুল ইসলাম জহীর বলেন, কালে কালে ছাত্র রাজনীতি বিকশিত হওয়ার কথা থাকলেও তা সম্ভব হয়নি। নিজেকে সম্মান করার পাশাপাশি অন্যকেও সম্মান করতে হবে। সততা, নিষ্ঠা, পারষ্পরিক শ্রদ্ধাবোধ ও ভ্রাতৃত্ববোধ বাড়িয়ে তুললে সংগঠন লাভবান হবে। অতীতে ছাত্রদলের সাথে যারা একদিনের জন্যও সম্পৃক্ত ছিলেন তাদের সাথে যোগাযোগ স্থাপনের জন্য তিনি বর্তমান নেতৃত্বকে পরামর্শ দেন।

সভায় সভাপতিত্ব করেন নগর ছাত্রদলের আহবায়ক ইসতিয়াক আহমেদ ইস্তি। সদস্য সচিব মোঃ তাজিম বিশ্বাসের সঞ্চালনায় এ সভায় উপস্থিত ছিলেন যুগ্ম আহবায়ক মোঃ হাসান ফকির, সৈয়দ ইমরান, হেদায়েত উল্লাহ দিপু, রিয়াজুল খান মুরাদ, মোঃ হেলাল হোসেন গাজী, সদস্য ওয়াহিদুজ্জামান খান, কাজী আসিফুর রহমান, স্বপন রহমাতুল্লাহ, পারভেজ হোসেন মিজান, আলী আকবর, মোঃ মাজাহারুল ইসলাম রাসেল, তরিকুল ইসলাম নকীব, আব্দুর রহিম বাদশা, সর্দার মাহিম উল হক, মোঃ ইউসুফ শেখ, মিজানুর রহমান মৃদুল ও ইলিয়াস সরদার।

সদর থানা, কমার্স কলেজ, সিটি কলেজ ও সুন্দরবন কলেজ ছাত্রদল নেতা রাজু আহমেদ, জুনায়েদ হোসেন মুন্না, আল ফারাবী, মো: হাফিজুর রহমান, মুরাদ খন্দকার, ফুয়াদ খন্দকার, মেহেদী হাসান ইমু, শেখ শামসাদ হোসেন আবিদ, লাইনুছ ইসলাম সাজিন, পরশ মির্জা, তামিম খান, নাজের মাহমুদ নিবিড়, মো: আবিদ শাহরিয়ার খান, মেহেদী হাসান সাইমন, মো: আবিদ, রবিন মাহমুদ, শেখ রাকিব, ফাহাদ আহমেদ, সাব্বির রাহিম।

সোনাডাঙ্গা থানা ও সোহরাওয়ার্দী কলেজ ছাত্রদল নেতা মোঃ জুবায়ের হোসেন পপিন, মোঃ ইসরাইল হোসেন জিসান, শেখ মারজান হুসাইন, অন্তিম বিশ্বাস, মোঃ আল-আমিন, মেহেদি হাসান রাকিব, মোঃ পারভেজ শিকদার, শেখ ইব্রাহীম খলিলুল্লাহ, ওবায়দুল হক নাইম, রাসেল, তরিকুল ইসলাম নাহিদ, আরিফ শিকদার, কাফি হাসান, শাহীন, মোঃ রাকিবুল ইসলাম, রাজ।

খালিশপুর থানা, মহসিন কলেজ ও পলিটেকনিক কলেজ ছাত্রদল নেতা কাজী সালমান মেহেদী, ইমরান সালেহ সিফাত, শুভ কুমার দাস, অমিত মল্লিক, ফারহাদ হোসেন জেনিথ, মোঃ মিরাজুল ইসলাম, বেলাল হোসেন, জামিউল রহমান অপূর্ব।

দৌলতপুর থানা, বি এল কলেজ ও দিবা-নৈশ কলেজ ছাত্রদল নেতা আল-আমিন লিটন, মেহেদী হাসান, রবিউল ইসলাম, মোঃ রনি শেখ, হাবিবুর রহমান শোভন, রাকিবুল ইসলাম সাজিদ, সাব্বির রাহিম, নূর ইসলাম।

খানজাহান আলী থানা ছাত্রদল নেতা হাবিবুর রহমান বিপ্লব, রফিকুল ইসলাম, মোঃ মিরাজুল ইসলাম, সিয়াম প্রমুখ।

(ঊষার আলো-এফএসপি)