বঙ্গবন্ধুর সমাধিতে বাংলাদেশ প্রেস কাউন্সিল নেতৃবৃন্দের শ্রদ্ধা

সর্বশেষ আপডেটঃ

গোপালগঞ্জ প্রতিনিধি : গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সমাধিতে শ্রদ্ধা নিবেদন করেছেন বাংলা‌দেশ প্রেস কাউ‌ন্সিলের সদস্যবৃন্দ। প্রধানমন্ত্রীর সাবেক তথ্য উপদেষ্টা ও ডিবিসি নিউজ টেলিভিশনের চেয়ারম্যান ও ইংরেজি দৈনিক ডেইলি অবজারভার পত্রিকার সম্পাদক ইকবাল সোবাহান চৌধুরীর নেতৃত্বে প্রেস কাউ‌ন্সি‌লের কার্য নির্বাহী সদস্য ও বাসস-এর বার্তা সম্পাদক নু‌রে জান্নাত সীমা, ডিইউ‌জে সাংগঠ‌নিক সম্পাদক জিহাদুর রহমান জিহাদ, প্রেস কাউ‌ন্সিল স‌চিব মোহাম্মদ শাহ আলম উপ‌স্থিত ছি‌লেন। বৃহস্প‌তিবার (১২ আড়স্ট) দুপু‌রে তাঁরা জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সমাধিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন এবং বঙ্গবন্ধু ও ১৯৭৫ সালের ১৫ আগষ্ট তাঁর পরিবারের শহীদদের আত্মার মাগফেরাত কামনা করে বিশেষ মোনাজাতে অংশ নেন।

জাতির পিতার সামাধিতে শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে ইকবাল সোবহান চৌধুরী বলেন, যখনই আগষ্ট মাস আসে তখনই আমরা শ্রদ্ধা জানাই, পাশাপাশি হত্যাকারীদের বিরুদ্ধে আমরা আমাদের ঘৃনাও প্রকাশ করি।

তিনি বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু আমাদের সাংবাদিক সমাজের জন্য যে অবদান রেখেছেন তা সাংবাদিক সমাজ কখনো ভুলবেনা। সাংবাদিকদের কল্যানের জন্য তিনিই প্রথম একটি বিশেষ আইন করেছিলেন যাতে আমাদের বেতন কাঠামো নির্ধারন করা হয়(ওয়েজ বোর্ড)। সাংবাদিকতার স্বাধীনতা এবং তাদের রুটি রুজির অধিকার এবং সাংবাদিকদের অধিকার প্রতিষ্ঠা ও তাদের মর্যাদা এবং আমাদের এই স্বাধীন বাংলাদেশে স্বাধীন ভাবে কাজ করতে পারে, সেজন্য তিনি বেশ কয়েকটি আইন করেছিলেন। তিনি বলেন, এখন বঙ্গবন্ধুর সুযোগ্যা কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে সেই সাংবাদিকতার জগত অনেক বিস্তার লাভ করেছে।

ইকবাল সোবহান চৌধুরী বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তার বাবার মতো সাংবাদিকদের অধিকারের প্রশ্নে অনেক বেশী সংবেদনশীল। সাংবাদিকদের কল্যানের জন্য তিনি কল্যান ট্রাষ্ট করে দিয়েছেন এবং সাংবাদিকদের কল্যানের জন্য বিভিন্ন সময়ে তিনি সাংবাদিকদেরকে অনুদান দিচ্ছেন। এই করোনাকালেও সাংবাদিকদের কল্যানের জন্য ১০ কোটি টাকা অনুদান দিয়েছেন।

তিনি বলেন, আমরা মনে করি, আমাদের জাতির পিতা প্রতিষ্ঠিত এই স্বাধীন বাংলাদেশে স্বাধীনভাবে মিডিয়া তার ভূমিকা পালন করতে পারছে। যদিও আমরা দেখছি এখনো ষড়যন্ত্র চলছে আমাদের স্বাধীনতার বিরুদ্ধে, আমাদের মুক্তিযুদ্ধের চেতনার বিরুদ্ধে।

তিনি আরো বলেন, কিছু কিছু পত্র-পত্রিকা, মিডিয়া এবং কিছু কিছু সাংবাদিক এখনো বিভ্রান্তি সৃষ্টি করার চেষ্টা করছে। গণতন্ত্রের জন্যে একটি অসাম্প্রদায়িক সমৃদ্ধ বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠার যে আন্দোলন চলছে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে, আমরা সেখানে আমাদের কলমের স্বাধীনতা, মত প্রকাশের স্বাধীনতা ব্যবহার করে সেই অশুভ শক্তিকে আমরা প্রতিহত করবো। দেশের উন্নয়নের স্বার্থে, দেশের গণতন্ত্রের স্বার্থে অসাম্প্রদায়িক শক্তি দিয়ে আমরা জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে রুখে দাড়াবো।

(ঊষার আলো-এমএনএস)