নয়াপল্টনে পুলিশের গুলিতে নিহত ও শতাধিক নেতাকর্মী আটকের দাবি বিএনপির

সর্বশেষ আপডেটঃ

ঊষার আলো ডেস্ক : ১০ ডিসেম্বরকে সামনে রেখে নয়াপল্টনে বিএনপির নেতাকর্মীদের ওপর পুলিশের হামলা, গুলিবর্ষণ ও গুলিতে দুইজন বিএনপি নেতা নিহত এবং ঢাকা মহানগর দক্ষিণ বিএনপির আহ্বায়ক আবদুস সালাম, উত্তর কমিটির আহ্বায়ক আমান উল্লাহ আমান, সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী, যুগ্ম মহাসচিব খায়রুল কবির খোকন, খালেদা জিয়ার বিশেষ সহকারী শামসুর রহমান শিমুল বিশ্বাস ও কেন্দ্রীয় প্রচার সম্পাদক শহীদ উদ্দীন চৌধুরী এ্যানিসহ শতাধিক নেতাকর্মীকে আটকের ঘটনায় গভীর উদ্বেগ ও নিন্দা জানিয়েছেন খুলনা বিএনপি নেতৃবৃন্দ। বিবৃতিতে তারা বলেন, ১০ ডিসেম্বরের সমাবেশ ও আন্দোলন ঠেকাতে সরকারের নানা অপকৌশলের অংশ হিসেবে বিএনপির নেতাকর্মীদের হত্যা, গুলিবর্ষণ, গণগ্রেফতার ও দমন-পীড়ন চালাচ্ছে।

রাষ্ট্রের আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর বীভৎস
তাণ্ডবে জাতি হতভম্ভ: খুলনা বিএনপি

বুধবার (৭ ডিসেম্বর) প্রদত্ত বিবৃতিতে নেতৃবৃন্দ বলেন, নয়াপল্টনে হামলার ঘটনাই প্রমান করে বিনাভোটের সরকারের নৈতিক পরাজয় ঘটেছে। মুখে তারা সভা-সমাবেশের অধিকার অবারিত আছে বললেও বাস্তবে সরকার একদিকে সংঘাতের উসকানি দিয়ে যাচ্ছে, অন্যদিকে ঢাকায় বিএনপির ১০ ডিসেম্বরের সমাবেশ বানচাল করতে ব্যাপক দমন-পীড়ন চালাচ্ছে। নেতৃবৃন্দ আরো বলেন, বুধবার গণসমাবেশ বাস্তবায়নের লক্ষ্যে উপস্থিত নেতা-কর্মীদের ওপর পুলিশ নির্বিচারে টিয়ারসেল নিক্ষেপ, হামলা, লাঠিচার্জ ও গুলি করে। বিএনপি অফিসের ভেতরে হামলা চালিয়ে ব্যাপক ভাংচুর করে। সেখানে টিয়ারগ্যাস ছুড়ে এক শ্বাসরুদ্ধকর অবস্থার সৃষ্টি করে। অফিসের ভেতরে থাকা মহিলা নেতা-কর্মীরাও তাদের হাত থেকে রেহাই পায়নি। খুব কাছ থেকে গুলি করে বিএনপির দুইজন কর্মীকে নির্দয়-নিষ্ঠুরভাবে হত্যা করেছে। গুলিবিদ্ধ হয়েছেন অসংখ্য নেতা-কর্মী। নয়াপল্টনের পিচঢালা কালো রাস্তা রঞ্জিত হয়েছে শহীদান ও আহতদের রক্তে। রাষ্ট্রের আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর এই বীভৎস তাণ্ডবের চিত্র দেখে গোটা জাতি হতভম্ভ।

বিবৃতিতে নেতৃবৃন্দ নিহতদের আত্মার মাগফিরাত কামনা এবং তাদের পরিবার, আত্মীয়-স্বজন ও সহকর্মীদের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপনসহ বিচার বিভাগীয় তদন্ত কমিশন গঠন করে এ হত্যার সাথে সংশ্লিষ্টদের বিরুদ্ধে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিসহ কেন্দ্রীয় শতাধিক নেতাকর্মী ও খুলনায় গত ৪দিনে গ্রেফতারকৃত ৬০ নেতাকর্মীর নিঃশর্ত মুক্তির দাবি জানিয়েছেন।

বিবৃতিদাতারা হলেন, বিএনপি’র জাতীয় নির্বাহী কমিটির তথ্য সম্পাদক আজিজুল বারী হেলাল, খুলনা মহানগর বিএনপির সম্মানীত সদস্য রকিবুল ইসলাম বকুল, খুলনা মহানগর বিএনপি’র আহবায়ক এড.শফিকুল আলম মনা, খুলনা জেলা বিএনপি’র আহবায়ক আমীম এজাজ খান, খুলনা মহানগর বিএনপি’র সদস্য সচিব শফিকুল আলম তুহিন, খুলনা জেলা বিএনপি’র সদস্য সচিব এস এম মনিরুল হাসান বাপ্পী।