খুমেক হাসপাতাল থেকে নবজাতক চুরি

সর্বশেষ আপডেটঃ

ঊষার আলো রিপোর্ট : খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল (খুমেক) থেকে এক নবজাতক চুরির ঘটনা ঘটেছে।

মঙ্গলবার (২৪ জানুয়ারি) রাতে হাসপাতালের নিচে বেপরোয়া এ্যাম্বুলেন্স ড্রাইভারদের সাথে প্রসূতির স্বজনদের গোলমালের মধ্যে এ ঘটনা ঘটে বলে হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে।

ঘটনার সাথে জড়িত থাকার সন্দেহে র‌্যাব-৬ দুইজনকে আটক করেছে বলেও হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ জানায়।

হাসপাতাল সূত্রে জানা যায়, মঙ্গলবার (২৪ জানুয়ারি) সকাল সাড়ে ১০টার দিকে ফকিরহাট উপজেলার পিলজং এলাকা থেকে দিনমজুর তোরাবআলী তার অন্ত:সত্ত্বা স্ত্রী রানী বেগমকে (৩৫) নিয়ে খুমেক হাসপাতালে আসেন। তাকে হাসপাতালে লেবার ওয়ার্ডে ভর্তির পর দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে বাচ্চা প্রসব করেন। সন্ধ্যায় বাচ্চা নিয়ে বাড়ি যাবার জন্য এ্যাম্বুলেন্স ঠিক করার সময় এ্যাম্বুলেন্সের দু’গ্রুপ তোরাবআলীর সাথে বাকবিতন্ডা শুরু করে। একপর্যায়ে বাচ্চার স্বজনদের সাথে সংঘর্ষ বাধে। এসময় বাচ্চাটি তার খালা সোনিয়ার কোলে ছিল। গোলমালের মধ্যে অজ্ঞাতনামা এক মহিলা কোল থেকে জোরকরে বাচ্চাটি নিয়ে পালিয়ে যায়। পাবর্তীতে র‌্যাব সংবাদ পেয়ে হাসপাতালের বিভিন্ন সিসি ক্যামেরার ফুটেজ দেখে আবীদ মেডিকেল হলের প্রবীর এবং গাজীরহাট ফার্মেসীর ইমন নামে দুজন ওষুধ ব্যবসায়ীকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করেন।

হাসপাতালের পরিচালক ডা. রবিউল হাসান ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, ঘটনার সময় আমি হাসপাতালে ছিলাম না। তবে বাচ্চা চুরির ঘটনা শুনেছি।