UsharAlo logo
শনিবার, ২০শে জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ৫ই শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
আজকের সর্বশেষ সবখবর

বেশি কথা বললে তো থাপ্পড় খেতেই হয়: বন্যা

usharalodesk
জুন ৮, ২০২৪ ৫:৪২ অপরাহ্ণ
Link Copied!

বিনোদন ডেস্ক : ভারতের বিজেপি-দলীয় এমপি ও অভিনেত্রী কঙ্গনা রনৌতের গালে থাপ্পড় মারার ঘটনা ইতোমধ্যেই চর্চার কেন্দ্রবিন্দুতে পরিণত হয়েছে নেটদুনিয়ায়। অনেকেই বিষয়টি নিয়ে কথা বলছেন। এবার সেই তালিকায় যোগ হলো দেশের জনপ্রিয় অভিনেত্রী বন্যা মির্জার নাম। তিনিও সামিল হয়েছেন এ আলোচনায়।

ক্যাপশনে অভিনেত্রী লিখেছেন— ‘বেশি কথা বললে তো থাপ্পড় খেতেই হয়। তা সে যেই হোক, আর অভিনেতা যত বড়ই হোক। এটি এমন একটি থাপ্পড়, যা না দিলে ঠিক হতো না। থাপ্পড় খেলে যা হয়, অন্য কিছুতে তা হয় না। একটি থাপ্পড় এমন সকল অভিনেতার জন্য ঠিক। (অভিনয় পেশা, অভিনেতা ব্যক্তি) যারা এমন এমন করে কথা বলে থাকে।’

যদিও তার পোস্টের কোথাও কঙ্গনার নাম উল্লেখ করেননি বন্যা। তবে পোস্টটি যে কঙ্গনাকে ইঙ্গিত করেই দেওয়া হয়েছে তা বুঝতে বাকি নেই ভক্তদের।

জানা গেছে, ভারতে লোকসভা নির্বাচনে হিমাচলের মান্ডি আসন থেকে বিজয়ী হয়েছেন বিজেপি প্রার্থী কঙ্গনা। ভোটে জয়ের পর দিল্লির উদ্দেশ্যে রওনা দিতে চন্ডীগড় এয়ারপোর্টে পৌঁছান তিনি। সিকিউরিটি চেকিংয়ের সময় কুলবিন্দরের সঙ্গে তর্কে জড়ান কঙ্গনা রনৌত। এ ঘটনার পরে অভিনেত্রীকে থাপ্পড় মারেন কনস্টেবল কুলবিন্দর।

কৃষি আইন বাতিলের দাবিতে ১৫ মাস আন্দোলন করেছিলেন ভারতীয় কৃষকরা। সেসময় ওই আন্দোলন সম্পর্কে কঙ্গনা বলেছিলেন, কৃষকরা ১০০ রুপির জন্য সেখানে বসেছিলেন। এদিকে ওই আন্দোলনের একজন কর্মী ছিলেন কুলবিন্দরের মা। মূলত ওই ঘটনার জেরেই অভিনেত্রীকে কষে চড়ে মারেন ওই নারী কনস্টেবল।

ঊষার আলো-এসএ